,



সেতু নয় যেন মরণফাঁদ

বাঙালী কণ্ঠ ডেস্কঃ পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলার কালাইয়া ও দশমিনা উপজেলার বাঁশবাড়িয়া ইউনিয়নের সংযোগ সেতুটি মরণফাঁদে পরিণত হয়েছে। কয়েক বছর আগে আয়রন সেতুটি ভেঙে মরণফাঁদে পরিণত হলেও মেরামত কিংবা পুনর্নির্মাণের ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ কোনো ধরনের উদ্যোগ নিচ্ছে না।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, কালাইয়া ইউনিয়নের বগীবাজার ও বাঁশবাড়িয়া লঞ্চঘাটে যাতায়াতের জন্য জনগুরুত্বপূর্ণ সেতুটি প্রায় আট বছর আগে ভেঙে যায়। এর পর এলাকাবাসী নিজ উদ্যোগে কয়েকবার সেতুটি কাঠের জোড়াতালি দিয়ে মেরামত করে। বর্তমানে ওই এলাকার কৃষক, লঞ্চযাত্রী ও শিক্ষার্থীরা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে প্রতিদিন সেতুটি পারাপার হচ্ছেন।

কাওসার মাহমুদ নামে এক ব্যক্তি বলেন, দীর্ঘদিন সেতুটি অবহেলায় পড়ে থাকলেও কোনো জনপ্রতিনিধি কিংবা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের নজর নেই।

তিনি বলেন, সেতুটি দ্রুত সংস্কার করে জনসাধারণকে ঝুঁকিমুক্ত করার দাবি জানাই।

হুমায়ন কবির নামে এক শিক্ষার্থী বলেন, আমি ছোটবেলা থেকেই সেতুটির এমন বেহাল দেখে আসছি, কোনো পরিবর্তন দেখছি না।

নাজমুন নাহার নামে এক গৃহিণী বলেন, সেতুটির জন্য এলাকাবাসীর সীমাহীন ভোগান্তি হচ্ছে।

মোগলে আজম নামে এক ব্যক্তি ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, আমরা নতুন প্রজম্মের জনপ্রতিনিধি চাই।

এ প্রসঙ্গে বাউফলের উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জাকির হোসেন বলেন, সেতুটি মেরামত কিংবা পুনর্নির্মাণের বিষয়ে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়া হবে।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর