,



যেভাবে পরিবর্তন করবেন মোটরসাইকেলের মালিকানা

বাঙালী কণ্ঠ ডেস্কঃ আমাদের দেশে দিন দিন বাড়ছে মোটরসাইকেলের ব্যবহার। যাতায়াতের পথ সহজ করতে এই বাহনটি অতুলনীয়। এছাড়া আজকাল অনেকের উপার্জনেরও একটি বড় মাধ্যম এই মোটরসাইকেল।

রাস্তাঘাটের যানজট, রাইড শেয়ারিং কিংবা শখ- বিভিন্ন কারণে অনেকেই মোটরসাইকেল কিনে থাকেন। এক্ষেত্রে অনেক মানুষের নতুন বাইক কেনার সামর্থ্য থাকে না। যার ফলে পুরাতন মোটরসাইকেলের বা সেকেন্ডহ্যান্ড মোটরসাইকেল কিনছেন কেউ কেউ। তবে জানাশোনা না থাকায় পুরাতন বা সেকেন্ডহ্যান্ড মোটরসাইকেল কিনে মালিকানা পরিবর্তন করার সময় সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। তাই চলুন জেনে নেয়া যাক মোটরসাইকেলের মালিকানা পরিবর্তনের সঠিক নিয়ম সম্পর্কে-

মালিকানাচ পরিবর্তনের ফর্মসমূহ

ফরম-টিও, ফরম-টিটিও, বিক্রয় রসিদ,  OWNER’S PARTICULARS/SPECIMEN SIGNATURE ফরম লিখতে হবে আর ১৫০ টাকা মূল্যমানের দুইটি স্ট্যাম্প যাতে গাড়ির সব তথ্য ও ক্রেতা-বিক্রেতার সব তথ্য দিয়ে হলফনামা লিখতে হবে। একটি ক্রেতার পক্ষে আরেকটি বিক্রেতার পক্ষে।

ক্রেতার করণীয়

পূরণ-কৃত ও স্বাক্ষরিত ‘টিও’ ও ‘টিটিও’ ফরম পূরণ করা লাগবে। প্রয়োজনীয় ফি জমা দানের রশিদ, ক্রেতার TIN সার্টিফিকেটের সত্যায়িত কপি (ভাড়ায় চালিত নহে এমন কার, জিপ, মাইক্রোবাস-এর ক্ষেত্রে), মূল রেজিস্ট্রেশন সনদ (উভয় কপি)/ডিজিটাল রেজিস্ট্রেশন সার্টিফিকেট (প্রযোজ্য ক্ষেত্রে), ছবিসহ নন-জুডিসিয়াল স্ট্যাম্পে ওয়ারিশগণের হলফনামা [একাধিক ওয়ারিশ থাকলে এবং একজনের নামে মালিকানা প্রদান করা হলে অন্যান্য ওয়ারিশগণ কর্তৃক স্ট্যাম্পে আর একটি হলফনামা দিতে হবে]

এছাড়া সংশ্লিষ্ট নমুনা স্বাক্ষর ফরমে ত্রেতার নমুনা স্বাক্ষর এবং ইংরেজিতে নাম, পিতার/স্বামীর নাম, পূর্ণ ঠিকানা ও ৩ কপি স্ট্যাম্প আকারের রঙ্গিন ছবিসহ ফরমের অন্যান্য সব তথ্য প্রদান করতে হবে। তবে ক্রেতা কোনো প্রতিষ্ঠান হলে, ওপরে বর্ণিত কাগজপত্রসহ (হলফনামা ব্যতীত) অফিসিয়াল প্যাডে চিঠি লিখতে হবে।

বিক্রেতার করণীয়

ফরম ‘টিটিও’ এবং বিক্রয় রশিদে স্বাক্ষর, বিক্রেতার ছবিসহ বিক্রয় হলফনামা, বিক্রেতা কোম্পানি হলে কোম্পানির লেটার হেড প্যাডে ইন্টিমেশন, বোর্ড রেজুলেশন ও অথরাইজেশন পত্র প্রদান, মোটরযানটি ব্যাংক অথবা অন্য কোনো প্রতিষ্ঠানের নিকট দায়বদ্ধ থাকলে দায়বদ্ধকারী প্রতিষ্ঠানের ঋণ পরিশোধ সংক্রান্ত ছাড়পত্র সংগ্রহ করে তা দাখিল করা লাগবে।

ওয়ারিশ সূত্রে মালিকানা বদলীর ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র

পূরণকৃত ও স্বাক্ষরিত ‘টিও’ ও ‘টিটিও’ ফরম, কোর্ট/স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠান প্রদত্ত ওয়ারিশ সংক্রান্ত সনদ, প্রয়োজনীয় ফি জমাদানের রশিদ, একাধিক ওয়ারিশ থাকলে প্রথম ওয়ারিশের TIN সার্টিফিকেটের সত্যায়িত কপি (ভাড়ায় চালিত নহে এমন কার, জিপ, মাইক্রোবাস-এর ক্ষেত্রে), মূল রেজিস্ট্রেশন সনদ (উভয় কপি)/ডিজিটাল রেজিস্ট্রেশন সার্টিফিকেট(প্রযোজ্য ক্ষেত্রে), ছবিসহ নন-জুডিসিয়াল স্ট্যাম্পে ওয়ারিশসূত্রে মালিকানা প্রাপ্তি সংক্রান্ত ওয়ারিশগণের হলফনামা [একাধিক ওয়ারিশ থাকলে এবং একজনের নামে মালিকানা প্রদান করা হলে সেক্ষেত্রে অন্যান্য ওয়ারিশগণ কর্তৃক সবার ছবিসহ নন-জুডিশিয়াল স্ট্যাম্পে আর একটি হলফনামা], নমুনা স্বাক্ষর ফর্মে নমুনা স্বাক্ষর এবং ইংরেজিতে নাম, পিতার/স্বামীর নাম, পর্ণ ঠিকানা ও তিন কপি স্ট্যাম্প আকারের রঙিন ফটোসহ ফরমের অন্যান্য তথ্য পূরণ করা লাগবে।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর