আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী বৈঠক গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত আসতে পারে

বাঙালি কণ্ঠ ডেস্কঃএকাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের প্রার্থী বাছাই প্রক্রিয়া, সংবিধানের ষোড়শ সশোধনী নিয়ে করণীয়, আগস্টজুড়ে মাসব্যাপী কর্মসূচি, নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণা, সাংগঠনিক অবস্থা পর্যালোচনাসহ সমসাময়িক সামাজিক ও রাজনৈতিক বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত আসছে আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সংসদের বৈঠকে। আওয়ামী লীগ নেতাদের সঙ্গে কথা বলে এ তথ্য জানা গেছে। আগামীকাল শনিবার গণভবনে দলীয় সভাপতি শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে।

এ বিষয়ে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবদুর রহমান মানবকণ্ঠকে বলেন, শোকের মাস আগস্টে আমরা মাসব্যাপী কর্মসূচি পালন করি। এবারো আমরা মাসব্যাপী কর্মসূচি হাতে নেব। কার্যনির্বাহী কমিটির বৈঠকে তা চূড়ান্ত হবে। দ্বিতীয়ত, সাংগঠনিক কার্যক্রম নিয়ে আলোচনা হবে। যেখানে যেখানে পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন বাকি আছে, সেগুলোর ব্যাপারে আলোচনা হবে। সম্মেলন না হলে সেখানে সম্মেলনের বিষয়ে আলোচনা হবে। এছাড়া আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নেতাকর্মীদের প্রস্তুতির বিষয়ে আলোচনা হবে বলেও জানান তিনি।

ইতিমধ্যে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের প্রস্তুতি পুরোদমে শুরু করেছে আওয়ামী লীগ। দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশীদের দৌড়ঝাঁপও শুরু হয়ে গেছে। বিএনপি এবারের নির্বাচনে অংশ নেবে- এটা বিবেচনায় রেখেই প্রস্তুতি নিচ্ছে দলটি। তারা বলছে, বিএনপির প্রার্থী দেখে ভোটে বিজয়ী হতে পারবেন এমন নেতাদেরই দলীয় মনোনয়ন দেয়া হবে। আগামীকালের বৈঠকে এ বিষয়ে সুনির্দিষ্ট আলোচনা হতে পারে বলে জানা গেছে। এছাড়া নির্বাচনকে সামনে রেখে প্রচার প্রচারণা বাড়াতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপের বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ আলোচনা হবে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্য নির্বাহী কমিটির বৈঠকে।

সর্বোচ্চ নীতি নির্ধারণী ফোরামের বৈঠকে আওয়ামী লীগ সাংগঠনিক বিষয় ছাড়াও সমসাময়িক সামাজিক ও রাজনৈতিক বিষয়গুলো নিয়েও আলোচনা করে থাকে। এবারের বৈঠকেও তার ব্যতিক্রম হবে না। সম্প্রতি আপিল বিভাগ সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের রায় বহাল রেখেছেন। আওয়ামী লীগের দু-একজন নেতা এতে ক্ষোভ প্রকাশ করলেও দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, রায়ের পূর্ণাঙ্গ কপি পাওয়ার পরে দলের আনুষ্ঠানিক প্রতিক্রিয়া জানানো হবে। তাই এবারের বৈঠকের আলোচনা এই বিষয়টি আসতে পারে বলে দলটির নেতাদের সঙ্গে আলাপ করে জানা গেছে।

আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, আওয়ামী লীগ সুশৃঙ্খল দল। মিটিং তো রুটিন ওয়ার্ক। সেখানে সাংগঠনিক বিষয় নিয়ে আলোচনা হবে। সমসাময়িক আর্থ-সামাজিক ও রাজনৈতিক বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা হবে। আন্তর্জাতিক কোনো ইস্যু থাকলে তা নিয়েও আলোচনা হয়।

আগস্ট মাস শোকের মাস। ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবসসহ প্রতিবছর এ মাসে মাসব্যাপী কর্মসূচি পালন করে আওয়ামী লীগ। এবারো তার ব্যতিক্রম হবে না বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের নেতারা। শনিবারের বৈঠকে ১ আগস্ট থেকে ৩১ আগস্ট পর্যন্ত আওয়ামী লীগ ও তার সহযোগী সংগঠনের বিভিন্ন কর্মসূচি চূড়ান্ত হবে বলে জানা গেছে।

এ বিষয়ে দলের সাংস্কৃতিক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল বলেন, এটা রুটিন ওয়ার্ক। এবারো আগস্টে আমরা মাসব্যাপী কর্মসূচি পালন করব। সভায় সেই কর্মসূচি নিয়েই আলোচনা হবে। এছাড়া সাংগঠনিক বিষয় নিয়েও আলোচনা হবে।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর