,



অফিস থেকে ১০২ পাসপোর্ট উদ্ধার: অমির দুই সহযোগী রিমান্ডে

বাঙালী কণ্ঠ ডেস্কঃ চিত্রনায়িকা পরীমনির করা ধর্ষণচেষ্টা ও হত্যাচেষ্টার মামলার আসামি তুহিন সিদ্দিকী অমির দুটি রিক্রুটিং এজেন্সিতে অভিযান চালিয়ে ১০২টি পাসপোর্ট উদ্ধারের ঘটনায় তার দুই সহযোগী বাছির ও মশিউরের দুইদিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। বুধবার ঢাকা মহানগর হাকিম দেবব্রত বিশ্বাসের আদালত এ আদেশ দেন।

এদিন দুই আসামিকে ঢাকা মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করা হয়। এরপর মামলার সুষ্ঠু তদন্তের স্বার্থে তাদের ১০ দিন করে রিমান্ডে নিতে আবেদন করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা। আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে আদালত প্রত্যেকের দুইদিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে, গতকাল মঙ্গলবার রাতে রাজধানীর দক্ষিণখানের সিঙ্গাপুর ট্রেনিং সেন্টার নামের অমির একটি রিক্রুটিং এজেন্সিতে অভিযান চালানো হয়। এছাড়া উত্তরা পশ্চিম থানা এলাকায় আরেকটি ট্রাভেল এজেন্সিতে পুলিশ অভিযান চালায়। এ সময় সিঙ্গাপুর ট্রেনিং সেন্টারে অভিযান চালিয়ে ১০২টি পাসপোর্ট উদ্ধার করা হয়। তবে উত্তরা পশ্চিম থানা এলাকার ট্রাভেল এজেন্সিতে অভিযান চালিয়ে কিছু পাওয়া যায়নি। এ ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে রাজধানীর দক্ষিণ খান থানায় অমি, বাছির, মশিউরসহ পাঁচজনকে আসামি করে পাসপোর্ট আইনে মামলা করা হয়েছে।

মামলার সূত্রে জানা যায়, জব্দ করা পাসপোর্টগুলোর বিষয় খতিয়ে দেখা হচ্ছে। ট্রাভেল এজেন্সির বৈধ লাইসেন্স আছে কি না, তাও দেখা হচ্ছে।

এদিকে গতকাল মঙ্গলবার বিমানবন্দর থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে করা মামলায় তুহিন সিদ্দিকী অমির সাতদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। গত সোমবার দুপুরে রাজধানীর উত্তরা-১ নম্বর সেক্টরের-১২ নম্বর রোডের বাসা থেকে তাদেরকে গ্রেফতার করে মহানগর গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ। এ সময় বাসা থেকে মাদক উদ্ধার করে পুলিশ।

এ ঘটনায় বিমানবন্দর থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে ডিবি গুলশান জোনাল টিমের এসআই মানিক কুমার সিকদার বাদী হয়ে মামলা করেন। এছাড়া চিত্রনায়িকা পরীমনিকে ধর্ষণচেষ্টা, হত্যাচেষ্টা ও হুমকির অভিযোগে সাভার মডেল থানায় করা মামলায় ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন মাহমুদ ও  তুহিন সিদ্দিকী অমির ১০ দিন করে রিমান্ডে নিতে আবেদন করেছে পুলিশ।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর