দলছুটদের দিয়ে নতুন দল বানাচ্ছে সরকার: রিজভী

রাষ্ট্রীয় অর্থ লোপাট করে দলছুটদের দিয়ে সরকার নতুন দল বানাচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। শুক্রবার বিকেলে এক ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে এই অভিযোগ করেন তিনি।

তিনি বলেন, জনপ্রিয় রাজনৈতিক দল কখনো অন্য কোনো রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মীদের ভাগিয়ে নেয় না। এই কাজটা করে গ্রাম্য মোড়ল, গ্রাম টাউট ও বাজে লোক।

তারা এসব কাজ করে অন্য মানুষের বাড়ি থেকে লোক ভাগিয়ে নেয়, সেই কাজ শেখ হাসিনা এখন করছেন। দলের মধ্যে নানাভাবেই সুবিধাবাদীরা ঢুকে পড়ে, উচ্ছিষ্টভোগীরা ঢুকে পড়ে— এ লোকগুলোকেই তারা পায়। এরশাদের সময়ে আমরা দেখেছি, এসব লোকগুলোকে নিয়ে এরশাদ দল গঠন করেছে, সরকার গঠন করেছে। শেখ হাসিনাও এখন ওই কায়দায় অনুকরণ করছে।

বিএনপি এবং সমমনা দলগুলোর থেকে লোক ভাগানোর জন্য শেখ হাসিনা তার গোয়েন্দা সংস্থাগুলোকে নির্দেশ দিয়েছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি। রিজভী বলেন,  তারা সেই কাজটি করছে। একজন একজনকে নানাভাবে প্রলোভন দেখিয়ে, নতুন দলের একেকটা অদ্ভুত-অদ্ভুত নাম দিয়ে তাদেরকে নিয়ে যাচ্ছে। নমিনেশনে তাদেরকে জেতানো হবে অথবা টাকা পয়সার লোভ দেখানো হচ্ছে।

তিনি বলেন, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী দিয়ে জনগণকে দমন করার জন্য যত ধরনের নিষ্ঠুর পদক্ষেপ আছে, সেগুলো তারা গ্রহণ করছে। অন্যদিকে চলছে রাষ্ট্রীয় টাকা লোপাট করে দলছুটদের নিয়ে দল বানানোর কারসাজি।

রিজভী আরও মন্তব্য করেন, স্বৈরাচারী যখন জাতির কাঁধের ওপর চেপে বসে তখন এই ধরনের প্রবণতাগুলো দেখা দেয়। শেখ হাসিনাও সেটাই করছেন। এটা তো এক নির্লজ্জ ঘৃণ্য কাজ, এটা কোনো ভদ্রলোকে করতে পারে না। কারণ, তার তো জনগণের কাছে যাওয়ার উপায় নাই। একটা অবাধ সুষ্ঠু নির্বাচন হলে তিনি জিতবেন না। আর এই জিতবেন না বলেই তিনি যত ধরনের গণবিরোধী কাজ, যত ধরনের দুর্বিনীত কাজ, যত ধরনের দুরাচারমূলক কাজ— নির্বাচনকে সামনে রেখে সেই কাজগুলো তিনি এখন করছেন।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর