অভিজিৎ-দীপনের খুনিরা দেশ ছেড়ে গেছে

ব্লগার অভিজিৎ রায় ও প্রকাশক ফয়সল আরেফিন দীপনের হত্যাকারীদের অনেকে দেশ ছেড়ে চলে গেছে বলে জানিয়েছেন ঢাকা মহানগর পুলিশ কমিশনার মো. আছাদুজ্জামান মিঞা। বুধবার ডিএমপি কার্যালয়ে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।
আছাদুজ্জামান মিয়া বলেন, অভিজিৎ ও দীপন হত্যায় উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি আছে। কারা খুন করেছে সেই নাম ঠিকানাও পেয়েছি। কেউ গ্রেফতার হয়েছে, কিন্তু অনেককে গ্রেফতরা করা সম্ভব হয়নি। এরইমধ্যে অনেকে বাংলাদেশ ছেড়ে চলে গেছে। এই বিষয়গুলো গুরুত্বের সঙ্গে দেখছি।
তিনি বলেন, পরিকল্পিত খুন যেগুলো এরই মধ্যে হয়েছে সেগুলো ভাবার বিষয়। এটি স্পেশাল অ্যাফোর্ট দেবার বিষয়।
ডিএমপি কমিশনার বলেন, ব্লগার, প্রকাশক হত্যায় সারা দেশে এ পর্যন্ত ২১টি মামলা হয়েছে। তার মধ্যে ১৬টা মামলার ডিটেকশন হয়েছে। ঢাকা মহানগরে মোট ১১টা মামলা হয়েছে। ঐ ঘটনাগুলো জঙ্গি গ্রুপ করেছে বলে ধারণা।
তিনি বলেন, ব্লগার রাজীব হায়দার হত্যা মামলার রায় হয়েছে। সেখানে আট জনকে বিভিন্ন মেয়াদে দন্ড দেয়া হয়েছে এবং দুইজনকে মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয়েছে। অন্যান্য মামলাগুলোর চার্জশিট দেয়া হয়েছে, কতগুলো মামলার এখনো তদন্ত চলছে। তার একটি হলো অভিজিত্ হত্যা মামলা, একটি দীপন হত্যা মামলা যেটি শাহবাগে হয়েছিল, আরেকটি শুদ্ধস্বরে হত্যাচেষ্টা মামলা যেটি মোহাম্মদপুরে হয়েছিল, আরেকটি হলো নিলয় হত্যা মামলা- এগুলো তদন্তাধীন রয়েছে।
অভিজিৎ রায় ও ফয়সল আরেফিন দীপন হত্যাসহ আরো কয়েকজনকে হত্যার দায় স্বীকার করেছে মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক জঙ্গিগোষ্ঠী আইএসও। তবে বাংলাদেশে এই ধরনের কোনো সংগঠন নেই বলে দাবি করে আসছে সরকার।
ইসলামী ব্যাংকের পক্ষ থেকে ঢাকা মহানগর পুলিশকে তিনটি পিকআপ ভ্যান দেয়া উপলক্ষে ডিএমপি কমিশনারের কার্যালয়ে ঐ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর