,



একটি বাড়ি একটি খামার: কর্মবিরতিতে সাত হাজার কর্মী

গ্রামাঞ্চলে ছিন্নমূলদের জন্য সরকারের বিশেষ প্রকল্প একটি বাড়ি একটি খামারের কার্যক্রম ব্যাহত হওয়ার উপক্রম হয়েছে কর্মীদের আন্দোলনের কারণে। পল্লী সঞ্চয় ব্যাংকে স্থায়ীভাবে নিয়োগের দাবিতে অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতির শুরু করেছে সাত হাজার কর্মচারী।

বুধবার বাংলাদেশ ক্রাইম রিপোর্টাস এসোসিয়েশনে সংবাদ সম্মেলনে এ দাবি করা হয়। সংগঠনের পক্ষে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন কামরুজ্জামান তাপস।

গত জুলাইয়ে এই প্রকল্পের কর্মীদের একাংশের চাকরি স্থায়ী করে পল্লী সঞ্চয় ব্যাংক। এরপর থেকে বাকি সাত হাজার কর্মীও একই দাবি জানিয়ে আসছেন।

সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, গত ২২ জুন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে পল্লী সঞ্চয় ব্যাংকের উদ্বোধন করেন। আর ১ জুলাই থেকে একটি বাড়ি একটি খামার প্রকল্পের সব স্থাবর-অস্থাবর সম্পদ দায় দেনা ও পাওনা এবং জনবলসহ পল্লী সঞ্চয় ব্যাংকের স্থানান্তরিত হওয়ার কথা আছে। কিন্তু পল্লী সঞ্চয় ব্যাংকের কার্যক্রম শুরু হলেও বিলুপ্ত প্রকল্পের সব কর্মকর্তা কর্মচারীদের ব্যাংকে পদায়ন করা হচ্ছে না।

সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, চাকরি স্থায়ী করতে উপজেলা ও জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীকে স্মারকলিপি দেয়া হলেও দাবি পূরণে কোনো উদ্যোগ নেয়া হয়নি। এ কারণে তারা কর্মবিরতির মত কর্মসূচিতে যেতে বাধ্য হয়েছেন।

একটি বাড়ি একটি খামার প্রধানমন্ত্রীর অগ্রাধিকারভিত্তিক একটি প্রকল্প। এই কর্মসূচির আওতায় নিম্ন আয়ের পরিবারের সদস্যদেরকে বিভিন্ন আয়বর্ধক কাজের প্রশিক্ষণ এবং বিনা জামানতে ঋণ দেয়া হয়।

২০০৯ সাল থেকে এই প্রকল্পের প্রাথমিক কাজ শুরু হয়। প্রাথমিকভাবে এক হাজার ৯৩২টি ইউনিয়নে প্রকল্পটি চালু হয়। পরে তা বাড়িয়ে চার হাজার ৫০৩ ইউনিয়নে বিস্তৃত করা হয়। তিন হাজার ১৬৩ কোটি টাকার এই প্রকল্পটির মেয়াদ ছিল চলতি বছরের জুন পর্যন্ত।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর