,



জামায়াত ছাড়া তারা পুরোপুরি অচল : ওবায়দুল কাদের

বাঙালী কণ্ঠ নিউজঃ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, সাম্প্রদায়িকতার সবচেয়ে বড় পৃষ্ঠপোষক বিএনপি। নির্বাচনে তারা জঙ্গিদের মনোনয়ন দিয়েছে। জামায়াত ছাড়া তারা পুরোপুরি অচল। বৃহস্পতিবার দুপুরে ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, তাদের প্রার্থীরা কোথাও বাধাপ্রাপ্ত হচ্ছে ঢালাওভাবে এমন অভিযোগ না দিয়ে তথ্যপ্রমাণ দিয়ে কথা বলুক। অন্ধকারে ঢিল ছোড়া তাদের পুরনো অভ্যাস। বিএনপির কয়েকজন নেতার নমিনেশন জমা না দিতে পারাটা তাদের অভ্যন্তরীণ বিষয়। মনগড়া অভিযোগ আনলে হবে না। বিএনপির ভেতরে জগাখিচুরি অবস্থা। দলের অবস্থা ফখরুলের নিয়ন্ত্রণের বাইরে।

তিনি বলেন, ঐক্যফ্রন্টে ঐক্য নেই, এটা দিবালকের মতো পরিষ্কার। তিনি আরো বলেন, মহাজটের মধ্যে আমাদের মেজর কোনো সমস্যা নেই। ছোটখাটো সমস্যা আছে। আলোচনা চলছে। কাদের বলেন, আওয়ামী লীগের কয়েকজন সিনিয়র নেতাকে নমিনেশন না দেয়া নির্বাচনী পরিকল্পনার অংশ, অযোগ্যতার জন্য নয়।

বিএনপিসহ ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বাধীন জোট ‘জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট’ নির্বাচনে আসবে বলে আশা প্রকাশ করে তিনি বলেন, আমরা চাই প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ, প্রতিযোগিতাপূর্ণ নির্বাচন। বিএনপি-ঐক্যফ্রন্ট না থাকলে এটা প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ হবে না।

জামায়াতের প্রার্থীরা ধানের শীষ প্রতীকে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন—সাংবাদিকরা এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করলে ওবায়দুল কাদের বলেন, এটা অভিনব কিছু নয়। জামায়াতকে ছাড়া বিএনপি অচল। তারা একসঙ্গেই কাজ করছে, রাজনীতি করেছে এবং সাম্প্রদায়িকতা করেছে।

২০১৪ সালে নির্বাচনকে কেন্দ্র করে যে সহিংসতা হয়েছে সেটিও বিএনপির সঙ্গে মিলে জামায়াত করেছে বলে অভিযোগ করেন ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, জামায়াতকে আলাদা করে লাভ নেই। তারা একই বৃন্তে দুই ফুল। বিএনপি থেকে জঙ্গিদের মনোনয়ন দেওয়া হচ্ছে অভিযোগ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, এই যে ব্যারিস্টার শাকিলা ফারজানা, সে কী? সে জঙ্গি অর্থায়নের সঙ্গে জড়িত নয়? বিষয়টি আদালত পর্যন্ত গিয়েছে। তাহলে শাকিলা ফারজানা যদি জঙ্গি না হয়, তাহলে জঙ্গি কে? এরকম অনেক জঙ্গিকে তারা মনোনয়ন দিয়েছে বলে আমরা জানি। এগুলো তাদের জন্য নতুন কিছু নয়।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর