,



পৃথিবীর ক্ষুদ্রতম দম্পতি এবার গিনেসের পাতায়। জেনে নিন এই ভালবাসার গল্পটি

৩৫.২ ইঞ্চি উচ্চতার কাতিউশিয়া হোশিনোকে সারপ্রাইজ দিয়ে ৩৪.৮ ইঞ্চি লম্বা পাওলো গ্যাব্রিয়েল বারোস সম্প্রতি বিয়ের প্রস্তাব দিয়েছিলেন।

পৃথিবীজুড়ে কতরকম ঘটনাই না ঘটে চলে প্রতিমুহূর্তে। তার কোনওটা আমাদের নজরে আসে, কোনওটা আবার অজানাই রয়ে যায় চিরকাল। গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ড-এর পাতায় স্থান পায় বিশ্বের তেমনই কিছু চমকদার ঘটনা, যা আপনার কৌতূহল তৈরি করতে বাধ্য। সংস্থার তরফ থেকে সম্প্রতি বিক্রি করা হয়েছে দশকোটিতম কপিটি, যেখানে স্থান পেয়েছে পৃথিবীর ক্ষুদ্রতম দম্পতির কথা।

গ্যাব্রিয়েল ও কাতিউশিয়া। একজন আরেকজনের উপরে উঠে দাঁড়ালে উচ্চতা হয় ৫ ফুট ১০ ইঞ্চি!


৩৫.২ ইঞ্চি উচ্চতার কাতিউশিয়া হোশিনোকে সারপ্রাইজ দিয়ে ৩৪.৮ ইঞ্চি লম্বা পাওলো গ্যাব্রিয়েল বারোস সম্প্রতি বিয়ের প্রস্তাব দিয়েছিলেন। ব্রাজিলের ইতুপেভার এক রেস্তোরাঁয় প্রস্তাবের সময় উপস্থিত ছিলেন গ্যাব্রিয়েল ও কাতিউশিয়ার বন্ধুরাও।

গ্যাব্রিয়েল পেশায় আইনজীবী এবং কাতিউশিয়া হলেন রূপবিশারদ। একটি আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তাঁরা সদ্য জানিয়েছেন, ‘আমাদের এই রেকর্ড অনেককে উদ্বুদ্ধ করবে বলে বিশ্বাস করি। সঙ্গে বিশ্ববাসীকে এও আবার মনে করাবে যে, সব মানুষের সঙ্গেই সমান ব্যবহার করা উচিৎ।’

অবশ্য তাঁদের দু’জনের ভালবাসার গল্পটা কিন্তু খুব একটা মসৃণ রাস্তা ধরে এগোয়নি। স্যোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁদের প্রথম আলাপ হয়। কাতিউশিয়া জানিয়েছেন, ‘প্রথমবার যখন পাওলোর সঙ্গে কথা বলা শুরু করি, আমার খুব রাগ হয়েছিল। খুবই উল্টোপাল্টা কথা বলছিল ও।’

গ্যাব্রিয়েল অবশ্য এর মৃদু প্রতিবাদ করে জানিয়েছেন, ‘ও মনে করেছিল, আমি ওর সঙ্গে ফ্লার্ট করার চেষ্টা করছি। তবে তেমন কোনও উদ্দেশ্য আমার ছিল না। ’

৩০ বছর বয়সি গ্যাব্রিয়েল ডায়াস্ট্রোফিক ডিসপ্লেসিয়ায় আক্রান্ত। অন্যদিকে, ২৬ বছর বয়সি কাতিউশিয়ার রয়েছে অ্যাকোন্ডোপ্লেসিয়া ডোয়ার্ফিজম। অসুখ কিন্তু বিয়েতে বাধা হয়ে দাঁড়ায়নি।-এবেলা

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর