,



অবহেলায় কিডনি হারাচ্ছেন না তো

বাঙালী কণ্ঠ নিউজঃ কিডনি হলো মানব দেহের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি অঙ্গ। এই অঙ্গটিতে কোন সমস্যা দেখা দিলে শরীরে একেক পর এক জটিলতার সৃষ্টি হতে পারে। কিডনির সমস্যাকে সাধারণত বলা হয়ে থাকে নীরব ঘাতক। কিডনি রোগের উপসর্গ আগে থেকে খুব একটা দেখা যায় না। ধীরে ধীরে ভেতর থেকে কিডনি নষ্ট হয়ে যেতে পারে আপনার অজান্তেই। তবে কিছু কিছু লক্ষণ আছে যা দেখে সতর্ক হওয়া যায় কিডনি রোগ হওয়ার আগেই।

চলুন জেনে নেওয়া যাক সেগুলো সম্পর্কে। অনেকেরই হঠাৎ করে মুখ এবং চোখের আশাপাশ অস্বাভাবিকভাবে ফুলে উঠতে পারে। এমন ঘটনা ঘটলে সতর্ক হতে হবে। কেননা কিডনির সমস্যা থেকলে এ ধরনের সমস্যা সৃষ্টি হতে পারে। কিডনির সমস্যা হতে পারে এমন আরেকটি লক্ষণ হলো ঘন ঘন প্রস্রাবের বেগ অনুভূত হওয়া। কিডনি সঠিকভাবে কাজ না করলে এমনটা হতে পারে। এছাড়া মূত্রথলিতে সংক্রমণ এবং প্রস্রাবের জ্বালাপোড়া থেকেও কিডনি রোগের লক্ষণ বোঝা যায়। তাই এক্ষেত্রেও সাবধান হওয়া উচিত।

শরীরের বিভিন্ন অংশের পেশিতে ঘন ঘন অস্বাভাবিক রকম টান অনুভূত হলে সতর্ক হতে হবে। এই টান থেকে অনেক সময় খিঁচুনি পর্যন্ত হতে পারে। বেশিরভাগ কিডনি রোগীরই এমন লক্ষণ প্রকাশ পেয়ে থাকে। কিডনি বিকল হয়ে শরীরের ক্ষতিকর পদার্থগুলো জমে ত্বক শুষ্ক হয়ে পড়ে। এমন অবস্থায় চিকিৎসকের পরামর্শ গ্রহণ করতে হবে যত দ্রুত সম্ভব।

অনেকেরই হুটহাট পিঠে বিশেষ করে কোমরের একটু উপরে ব্যথা অনুভূত হয়। কিছুদিন পরপর এই ব্যথা ঘন ঘন দেখা দেয়। এমনটা ঘটলে অবশ্যই সতর্ক হওয়া জরুরী। কিডনিতে সমস্যা থাকলে এমনটা ঘটতে পারে।

এসব ছাড়াও, গোড়ালি বা পায়ের পাতা ফুলে যাওয়া, প্রস্রাবের সাথে রক্ত, রক্তচাপের দ্রুত ওঠানামা, অল্প পরিশ্রমেই ক্লান্ত হয়ে পড়া, অল্পতেই হাঁপিয়ে ওঠা, শ্বাস-প্রশ্বাসের কষ্ট হওয়ায় কিডনি রোগের কারণ। তাই এসব সমস্যা দেখা দিলে দ্রুত চিকিৎসকের পরামর্শ গ্রহণ করুন।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর