,



প্রধানমন্ত্রী ‘রাজহংস’ উদ্বোধন করবেন ১৪ সেপ্টেম্বর

বাঙালী কণ্ঠ ডেস্কঃ আগামী বৃহস্পতিবার বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের বহরে যুক্ত হচ্ছে চতুর্থ ও শেষ বোয়িং ৭৮৭ ড্রিমলাইনার উড়োজাহাজ ‘রাজহংস’।

বিকালে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ড্রিমলাইনার অবতরণ করবে। আগামী ১৪ সেপ্টেম্বর সকাল ১১টায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ড্রিমলাইনারটি উদ্বোধনের কথা।

এর মধ্য দিয়ে বিমানবহরে উড়োজাহাজের সংখ্যা দাঁড়াবে ১৬টি। দেশে পৌঁছার পর ড্রিমলাইনারকে ওয়াটার ক্যানন স্যালুটের মাধ্যমে স্বাগত জানানো হবে।

বিমানটি দেশে আনতে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি প্রতিনিধি দল সিয়াটলে বোয়িং কোম্পানির এভারটে ডেলিভারি ও অপারেশন্স সেন্টারে পৌঁছেছে।

বিমানের পক্ষে স্টোর অ্যান্ড লজিস্টিক সাপোর্ট বিভাগের পরিচালক মমিনুল ইসলাম বোয়িংয়ের কাছ থেকে উড়োজাহাজটি গ্রহণ করবেন।

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স ২০০৮ সালে মার্কিন উড়োজাহাজ নির্মাতা প্রতিষ্ঠান বোয়িং কোম্পানির সঙ্গে ১০টি নতুন বিমান ক্রয়ের জন্য চুক্তিবদ্ধ হয়।

ইতোমধ্যে ৪টি বোয়িং ৭৭৭-৩০০ ইআর, ২টি বোয়িং ৭৩৭-৮০০ ও ৩টি বোয়িং ৭৮৭-৮ ড্রিমলাইনার উড়োজাহাজ বিমানবহরে যুক্ত হয়েছে। ‘রাজহংস’ সংযোজিত হওয়ার মধ্য দিয়ে চুক্তির ১০টি উড়োজাহাজের সবই বিমান বুঝে পাবে।

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের বহরে যুক্ত হতে যাওয়া চারটি ড্রিমলাইনারের নাম পছন্দ ও বাছাই করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এগুলো হল- আকাশবীণা, হংসবলাকা, গাঙচিল ও রাজহংস। এর আগে ৪টি বোয়িং ৭৭৭-৩০০ ইআর, ২টি বোয়িং ৭৩৭-৮০০ ইআরের নামও প্রধানমন্ত্রীর দেয়া যথা- পালকি, অরুণ আলো, আকাশ প্রদীপ, রাঙা প্রভাত, মেঘদূত এবং ময়ূরপঙ্খী।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর