,



বেসরকারি চাকরিজীবীরাও পাবেন পেনশন: পরকল্পনামন্ত্রী

সরকার সবার জন্য পেনশন চালু করতে চায়। এ জন্য প্রাথমিক কাজ শুরু হয়েছে বলে জানিয়েছেন পরিকল্পনামন্ত্রী পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান।

বুধবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে রাজধানীর বারিধারায় গার্ডিয়ানা হোটেলে ‘ইন্ট্রোডিউসিং অ্যা ইউনিভার্সাল পেনশন স্কিম ইন বাংলাদেশ : ইন সার্চ অব অ্যা ফ্রেমওয়ার্ক’ শীর্ষক এক আলোচনা সভায় অংশ নিয়ে এ কথা বলেন তিনি।

পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, আমরা ইতোমধ্যে কাজ শুরু করেছি। আমার জানা মতে, আমাদের অর্থ মন্ত্রণালয়ের ভেতরে ছোট একটি সেল বা প্রতিষ্ঠান আছে, যারা এ বিষয়টা নজরে রেখে প্রাথমিক কাজ শুরু করেছে।

এম এ মান্নান বলেন, যে বিষয়টা নিয়ে আলোচনা হচ্ছে, জেনে বা না-জেনেই হোক, এর মধ্যে আমরা চলে এসেছি। প্রায় ৫০ থেকে ৬০ শতাংশ মানুষকে আমরা নানাভাবে ছুঁয়ে যাচ্ছি। তার মানে বেশি এলাকা আমরা কাভার করে ফেলেছি। আর সামান্য বাকি। আমার মনে হয়, আমরা পারব।

সভার আয়োজন করে সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগ (সিপিডি) ও অক্সফাম ইন বাংলাদেশ। সর্বজনীন পেনশন কীভাবে বাস্তবায়ন করা যায়, বাংলাদেশের মানের অন্য দেশগুলো কীভাবে এটা চালাচ্ছে, অর্থের সংস্থান কীভাবে করা যায় – আয়োজকদের কাছে এ ধরনের বুদ্ধিবৃত্তিক পরামর্শগুলো প্রত্যাশা করেন পরিকল্পনামন্ত্রী।

মন্ত্রী বলেন, সবাই এখানে অংশ নিতে পারবে না। আমাদের এখনও ১১-১২ শতাংশ মানুষ আছে, যাদের আমরা হতদরিদ্র বলি। যাদের কোনো নিট আয় নাই। আমাদের রাজনৈতিক শক্তির প্রথম টার্গেট ওই নিচের ১১-১২ ভাগ মানুষকে টেনে উপরে আনা। তারা কন্ট্রিবিউট করতে পারবে না, তাই আসতে পারবে না, সেই ধরনের চিন্তায় আমরা যাব না।

সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন সংসদ সদস্য আবুল কালাম আজাদ, বিশ্ব ব্যাংকের সাবেক লিড ইকোনমিস্ট জাহিদ হোসেন, সিপিডির বিশেষ ফেলো দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য ও অধ্যাপক মুস্তাফিজুর রহমান প্রমুখ।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর