,



বিশ্বকাপ বাছাইয়ে বাংলাদেশের বাকি তিন ম্যাচ কাতারে

বাঙালী কণ্ঠ ডেস্কঃ বিশ্বকাপ ও এশিয়ান কাপ বাছাইয়ে ‘ই’ গ্রুপে বাংলাদেশের বাকি তিন ম্যাচ ঘরের মাঠে খেলার কথা থাকলেও তা আর হচ্ছে না! এশিয়ান ফুটবল কনফেডারেশন (এএফসি) শুক্রবার জানিয়ে দিয়েছে বাছাইয়ে আফগানিস্তান, ভারত এবং ওমানের বিপক্ষে হোম ম্যাচ তিনটি কাতারে খেলতে হবে বাংলাদেশকে। এএফসির এমন সিদ্ধান্তের ফলে লাল-সবুজরা হোম ভেন্যুর সুবিধা থেকে বঞ্চিত হলো।

আগের সূচি অনুযায়ী বাংলাদেশ-আফগানিস্তান ফিরতি লেগের ম্যাচটি আগামী ২৫ মার্চ সিলেটে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। ম্যাচ আয়োজনের জন্য প্রস্তুতও ছিল বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে)। কিন্তু হঠাৎ করে বেঁকে বসে আফগানরা। তারা প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের অজুহাত দেখিয়ে ম্যাচ খেলতে বাংলাদেশে আসতে অপারগতা জানায়। কিছুদিন আগে এএফসি ও বাফুফেকে আফগানিস্তান সরাসরি জানিয়েই দেয় যে লাল-সবুজদের বিপক্ষে ফিরতি লেগের ম্যাচটি খেলতে তারা বাংলাদেশে আসবে না। যদি নিরপেক্ষ কোনো ভেন্যুতে খেলা হয় তাহলে তারা খেলবে। তাদের এমন সিদ্ধান্তে বিপাকে পড়ে বাফুফে। কারণ ম্যাচ আয়োজনের জন্য সব ব্যবস্থা প্রায় চুড়ান্ত করে রেখেছিল বাফুফে। যে কারণে দেশের ফুটবলের অভিভাবক সংস্থাটি এএফসিকে বারবার বলেছে, ম্যাচ আয়োজনের জন্য প্রস্তুত তারা। কিন্তু কিছুতেই কিছু হলো না। শেষ পর্যন্ত আফগানিস্তানেরই জয় হলো। এএফসি আফগানদের ইচ্ছারই গুরুত্ব দিয়েছে। এখন মার্চের খেলা চলে গেল মে-জুন মাসে। এএফসির নতুন সূচি অনুযায়ী ৩১ মে থেকে ১৫ জুন পর্যন্ত চলবে বাছাই পর্বের খেলা। ঘোষিত নতুন সূচিতে ৩ জুন বাংলাদেশ খেলবে আফগানিস্তানের বিপক্ষে। এরপর ৭ জুন ভারত ও ১৫ জুন ওমানের বিপক্ষে মাঠে নামবে লাল-সবুজরা।

করোনার সংক্রামণ শুরুর আগে বিশ্বকাপ বাছাইয়ে চারটি ম্যাচ শেষ করতে পেরেছিল বাংলাদেশ। এরপর গত মার্চ মাসে করোনার প্রাদুর্ভাব বেড়ে গেলে স্থগিত হয়ে যায় বাছাইয়ের সব ম্যাচ। তবে কাতারের সঙ্গে সমঝোতার মাধ্যমে গত বছরের ৪ ডিসেম্বর দোহায় স্বাগতিকদের বিপক্ষে অ্যাওয়ে ম্যাচটি খেলেছিল বাংলাদেশ। বাকি ছিল তিন হোম ম্যাচ। কিন্তু আফগানিস্তার অসহযোগিতার কারণে ঘরের মাঠে খেলার সুযোগ হারাতে হলো বাংলাদেশকে।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর