,



হাইকোর্টের ৪১ বেঞ্চ বসবে আজ, চলবে নিম্ন আদালতের বিচার কাজ

বাঙালী কণ্ঠ ডেস্কঃ লকডাউনে সরকারি বিধিনিষেধ কিছুটা শিথিল করায় উচ্চ আদালতে আজ বৃহস্পতিবার বিচারকাজ পরিচালিত হবে। বসবে হাইকোর্টের ৪১টি দ্বৈত ও একক বেঞ্চ। একই দিন থেকে অধস্তন আদালত ও ট্রাইব্যুনালে মামলার বিচারকাজ সীমিত পরিসরে শুরু হচ্ছে।

এসব কার্যক্রমের মধ্যে ফৌজদারি মামলার আসামিরা নিম্ন আদালতে আত্মসমর্পণের সুযোগ পাচ্ছেন। শারীরিক উপস্থিতিতে সাক্ষ্য গ্রহণপূর্বক সাকসেশন ও অভিভাবকত্ব নির্ধারণ বিষয়ক মামলার শুনানি ও নিষ্পত্তি করা যাবে। তবে রিমান্ড শুনানির ক্ষেত্রে হাজতি আসামিকে আদালতে হাজির করা যাবে না। ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ম্যাজিস্ট্রেট কারা কর্তৃপক্ষের সহায়তায় আসামি দেখে ভার্চুয়ালি রিমান্ড শুনানি করবেন। গতকাল বুধবার প্রধান বিচারপতির নির্দেশে এ সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে সুপ্রিম কোর্ট।

এতে বলা হয়েছে, দেশের অধস্তন দেওয়ানি ও ফৌজদারি আদালত এবং ট্রাইব্যুনালসমূহে সকল প্রকার দেওয়ানি ও ফৌজদারি দরখাস্ত/ আপিল/ রিভিশন/ বিবিধ মামলাসহ সকল প্রকার শুনানি গ্রহণ (সাক্ষ্য গ্রহণ ব্যতীত) ও নিষ্পত্তি করবেন। স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণপূর্বক শারীরিক উপস্থিতিতে অধস্তন দেওয়ানি ও ফৌজদারি আদালত এবং ট্রাইব্যুনালসমূহে মামলা দায়ের করা যাবে। ফৌজদারি মামলায় অভিযুক্ত ব্যক্তি/ব্যক্তিগণ অধস্তন ফৌজদারি আদালত এবং ট্রাইব্যুনালসমূহে শারীরিক উপস্থিতিতে আত্মসমর্পণ আবেদন দাখিল করতে পারবেন। এক্ষেত্রে শুনানি কার্যক্রমের পদ্ধতি ও সময়সূচি এমনভাবে নির্ধারণ ও সমন্বয় করতে হবে যাতে আদালত প্রাঙ্গণে এবং আদালত ভবনে কোনোরূপ জনসমাগম না ঘটে।

আত্মসমর্পণ দরখাস্ত শারীরিক উপস্থিতিতে শুনানির সময় অভিযুক্ত ব্যক্তি এবং তার পক্ষে নিযুক্ত আইনজীবী ব্যতীত অন্য কোনো আইনজীবী এজলাস কক্ষে অবস্থান করবেন না। একটি আত্মসমর্পণ আবেদনের শুনানি শেষে সংশ্লিষ্ট আইনজীবী এজলাস কক্ষ ত্যাগ করার পর বিচারক/ম্যাজিস্ট্রেট পরবর্তী আত্মসমর্পণের দরখাস্ত শুনানির জন্য গ্রহণ করবেন।

এছাড়া অধস্তন আদালত ও ট্রাইব্যুনালে জামিন শুনানিকালে এবং মামলার অন্যান্য কার্যক্রমে হাজতি আসামিদের কারাগার হতে প্রিজনভ্যান বা অন্য কোনোভাবে আদালতকক্ষে হাজির না করার নির্দেশ প্রদান করা হলো।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর