অবসরের ইঙ্গিত দিলেন নাদাল

গত ১৯ বছরের মধ্যে প্রথমবারের মতো আসন্ন ফ্রেঞ্চ ওপেনে খেলবেন না স্প্যানিশ তারকা রাফায়েল নাদাল। ইনজুরির কারণে ফ্রেঞ্চ ওপেন থেকে নিজেকে সরিয়ে নিয়েছেন পুরুষ এককে রেকর্ড ১৪ বারের চ্যাম্পিয়ন নাদাল। এমনকি  আগামী বছর টেনিস ক্যারিয়ারকে বিদায় জানানোর ইঙ্গিতও দিয়েছেন তিনি।

গত জানুয়ারিতে অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে ইনজুৃরিতে পড়েন নাদাল। পুরনো সেই ইনজুরি থেকে এখনও পুরোপুরি সেরে উঠতে পারেননি তিনি। এজন্য ২০০৫ সালে ফ্রেঞ্চ ওপেনে অভিষেকের পর এই প্রথমবারের মত আসন্ন আসরে খেলবেন না নাদাল।

তিনি বলেন, ‘আমি সিদ্ধান্ত নেইনি, আমার শরীর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। রোলা গাঁরোয় খেলাটা অসম্ভব। পরের বছরই আমার শেষ বছর হবে, এটাই আমার ইচ্ছা। যদি এখন খেলা চালিয়ে যেতে থাকি, তাহলে সেটা সম্ভব হবে না।’

ইনজুরি থেকে সুস্থ হয়ে উঠতে গত চার মাস ঘাম ঝরিয়েছেন নাদাল। তিনি বলেন, ‘গত চার মাস খুব কঠিন পরিস্থিতির মধ্যে দিয়ে গিয়েছি। ইনজুরি থেকে সুস্থ হতে সব চেষ্টাই করেছি। কিন্তু রোলা গারোতে খেলা আমার পক্ষে অসম্ভব। কারণ অস্ট্রেলিয়ায় আমার যে সমস্যাগুলো ছিলো এখনো সেগুলোর সমাধান হয়নি।’

তিনি বলেন, ‘আমি এখনো আগের অবস্থায় রয়েছি, সে কারণেই  আমি রোলা গাঁরোয় প্রতিন্দ্বন্দিতা করার জন্য প্রস্তুত নয়। আমি এমন মানুষ নই যে রোলা গাঁরোয় শুধু থাকার জন্যই থাকবে এবং এমন জায়গায় আমি এভাবে থাকতে পছন্দ করি না।’

২০০৫ সালে ফ্রেঞ্চ ওপেনের অভিষেকেই শিরোপা জিতেছিলেন নাদাল। এরপর ১৩ বার ফ্রেঞ্চ ওপেনের মুকুট মাথায় তোলেন নাদাল। ‘ক্লে কোর্টের রাজা’ হিসেবে পরিচিত নাদাল ফ্রেঞ্চ ওপেনে ১১৫ ম্যাচের মধ্যে ১১২টিতেই জিতেছেন।

সার্বিয়ার নোভাক জকোভিচের সঙ্গে যৌথভাবে সর্বোচ্চ ২২টি গ্র্যান্ড স্ল্যামের মালিক নাদাল। এ ছাড়া ৭০টি এটিপি শিরোপা জিতেছেন তিনি। ২০৯ সপ্তাহ র‌্যাংকিংয়ে বিশ্বের এক নম্বরও ছিলেন নাদাল। এটিপির ইতিহাসে এটি ষষ্ঠ দীর্ঘতম।

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর