,



Two bottle of oil with green leaf and flower of pink geranium on a wooden boards background

কখন আপনার অপরিহার্য তেল ব্যবহার করা উচিত নয়

বাঙালী কণ্ঠ নিউজঃ  কখন আপনার অপরিহার্য তেল ব্যবহার করা উচিত নয় অপরিহার্য তেলের বেশ কিছু সুবিধা আছে, গাঁটের ব্যথার চিকিৎসার পাশাপাশি ঠান্ডা লাগা থেকে বুক জ্বালা| অনেকে মনে করেন যে অপরিহার্য তেল একটি উদ্ভিদ নিষ্কর্ষ যা, কোনো তেলের সাথে মেশানো হয়| যদিও ব্যাপারটি তেমন নয়|

একটি ছোট পরিমাণ অপরিহার্য তেল তৈরী করতে প্রচুর উদ্ভিদের প্রয়োজন হয়| উদাহরণস্বরূপ, ২২০ পাউন্ড ল্যাভেন্ডার ফুলের প্রয়োজন বোধ করা হয় মাত্র এক পাউন্ড ল্যাভেন্ডার অপরিহার্য তেল তৈরী করতে| মানুষের মনে হতে পারে যে অপরিহার্য তেল প্রাকৃতিক এবং তাই নিরাপদ|

বাস্তবে, অপরিহার্য তেল অত্যন্ত ঘন হয় এবং উদ্ভিদের থেকে যা নিষ্কাশিত হয় এটি তার থেকে ভিন্ন হয়ে থাকে| এ কারণে এটি কখনো বিপজ্জনক হতে পারে| এই নিবন্ধটিতে আমরা আলোচনা করব কখন আপনার অপরিহার্য তেল ব্যবহার করা উচিত নয়|

অপরিহার্য তেল ব্যবহার করার আগে কিছু নির্দিষ্ট তথ্য জানা খুবই গুরুত্বপূর্ণ| এর পরিমাপটিও জেনে নেওয়া প্রয়োজন| কখনও কখনও, এটির উচ্চ ঘনত্বে ব্যবহার, শরীরের অন্য কোন পরিবর্তন বা টিউমারের মত গুরুতর সমস্যা ঘটাতে পারে|

এছাড়াও এই তেলের বিশুদ্ধতা নিয়েও সংশয় থাকে| অপরিহার্য তেল কৃত্রিম রাসায়নিক এবং অন্যান্য যৌগের যোগ করে পরিবর্তিত করা হয়ে থাকে| কখনো কখনো উদ্ভিজ্জ তেলের সঙ্গেও মিশ্রিত করা হয়| অপরিহার্য তেল কখন ব্যবহার করা উচিত নয় জানতে আরও পড়ুন|

১। যখন ঘন: এই তেল খুব শক্তিশালী এবং অত্যন্ত ঘন হয়| তেমনটাই ব্যবহার করলে লাল ফুসকুড়ি এমনকি অল্প বিস্তর পুড়েও যেতে পারে| এটা একটি ক্যারিয়ার তেল দিয়ে লঘু করা বাঞ্ছনীয়| উদাহরণস্বরূপ, জোজোবা, আভাকাডো বা গ্রেপসিড তেল ব্যবহার করা যেতে পারে|

২। শ্লৈষ্মিক ঝিল্লীর উপর ব্যবহার করা উচিত নয়অপরিহার্য তেল কখনও শ্লৈষ্মিক ঝিল্লিতে ব্যবহার করা উচিত নয় – যে টিস্যু শরীরের ক্যাভিটি বরাবর থাকে যেমন মুখ, গলা এবং জরায়ু| এর ব্যবহারে এসব এলাকা উত্তপ্ত হতে পারে| তাই অপরিহার্য তেল ব্যবহার করার সঠিক পদ্ধতির সম্পর্কে আপনাকে অবগত হতে হবে|

৩। কখনও অভ্যন্তরীণভাবে গ্রহণ করা উচিত নয়: চিকিৎসকের পরামর্শ ছাড়া কখনো খাবেন না| এই তেল, অন্ত্রে ভাল ব্যাকটেরিয়া নিঃশেষ করে বলে জানা যায়|

৪। সংবেদনশীল ত্বকে ব্যবহার করবেন না: কিছু অপরিহার্য তেল ফটোটক্সিক হয় এবং এটি আপনার ত্বককে স্পর্শকাতর করতে পারে যা থেকে আপনি গুরুতর জ্বালা অনুভব করতে পারেন| তাই এর ব্যবহারের সময় অবশ্যই সচেতন থাকতে হবে|

৫। আপনি অ্যালার্জিক নন তো: এইসব অপরিহার্য তেলের শক্তিশালী ঘ্রাণ সহ্য করতে না পারলে, যতটা সম্ভব এটি এড়িয়ে চলাই শ্রেয়| এছাড়াও এটি ব্যবহার করার পূর্বে আপনার ত্বকে একটি ছোট প্যাচ স্থাপন করে পরীক্ষা করে নেওয়া অত্যন্ত জরুরি|

৬। যদি আপনি গর্ভবতী হন: এই তেল খুব শক্তিশালী এবং এটি আমাদের দেহ প্রভাবিত করতে পারে| যদি আপনি গর্ভবতী হন অভ্যন্তরীণভাবে গ্রহণ করা থেকে বিরত থাকুন|

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর