ঢাকা , সোমবার, ২২ জুলাই ২০২৪, ৭ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সুশীলদের সহিংসতা ও ভয় দেখানোয় উদ্বেগ যুক্তরাষ্ট্রের

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেন ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের অধীনেসহ মিডিয়া এবং সুশীল সমাজের বিরুদ্ধে সহিংসতা এবং ভয় দেখানোর বিষয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াশিংটন ডিসিতে স্থানীয় সময় সোমবার (১০ এপ্রিল) দুপুরে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেনের সঙ্গে বৈঠককালে এমন উদ্বেগ প্রকাশ করেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

ঢাকার মার্কিন দূতাবাসের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে মঙ্গলবার (১১ এপ্রিল) রাতে এ কথা জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, মার্কিন প্রধান উপ-মুখপাত্র বেদান্ত প্যাটেল জোর দিয়ে বলেন, বাংলাদেশে অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন এবং মানবাধিকারের প্রতি সম্মান গুরুত্বপূর্ণ। কারণ আমরা আমাদের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ককে আরও গভীর করতে চাই।

বেদান্ত প্যাটেল বলেন, বৈঠকে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী রোহিঙ্গা শরণার্থীদের আতিথেয়তার জন্য বাংলাদেশকে ধন্যবাদ জানান এবং ২০১৭ সাল থেকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মানবিক সহায়তায় প্রায় ২ দশমিক ১ বিলিয়ন ডলারের কথা তুলে ধরেন, যার মধ্যে বিশ্ব খাদ্যের জন্য ২৩ দশমিক ৮ মিলিয়ন ডলারের নতুন সহায়তা অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।

বৈঠকে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী বাংলাদেশে অন্তর্ভুক্তিমূলক অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি, অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন, মানব ও শ্রম অধিকার এবং মত প্রকাশের স্বাধীনতার প্রচারে যুক্তরাষ্ট্রের অঙ্গীকার পুনর্ব্যক্ত করেন বলে জানান বেদান্ত প্যাটেল।

Tag :
আপলোডকারীর তথ্য

Bangal Kantha

সুশীলদের সহিংসতা ও ভয় দেখানোয় উদ্বেগ যুক্তরাষ্ট্রের

আপডেট টাইম : ০৩:১৮ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ এপ্রিল ২০২৩

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেন ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের অধীনেসহ মিডিয়া এবং সুশীল সমাজের বিরুদ্ধে সহিংসতা এবং ভয় দেখানোর বিষয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াশিংটন ডিসিতে স্থানীয় সময় সোমবার (১০ এপ্রিল) দুপুরে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেনের সঙ্গে বৈঠককালে এমন উদ্বেগ প্রকাশ করেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

ঢাকার মার্কিন দূতাবাসের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে মঙ্গলবার (১১ এপ্রিল) রাতে এ কথা জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, মার্কিন প্রধান উপ-মুখপাত্র বেদান্ত প্যাটেল জোর দিয়ে বলেন, বাংলাদেশে অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন এবং মানবাধিকারের প্রতি সম্মান গুরুত্বপূর্ণ। কারণ আমরা আমাদের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ককে আরও গভীর করতে চাই।

বেদান্ত প্যাটেল বলেন, বৈঠকে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী রোহিঙ্গা শরণার্থীদের আতিথেয়তার জন্য বাংলাদেশকে ধন্যবাদ জানান এবং ২০১৭ সাল থেকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মানবিক সহায়তায় প্রায় ২ দশমিক ১ বিলিয়ন ডলারের কথা তুলে ধরেন, যার মধ্যে বিশ্ব খাদ্যের জন্য ২৩ দশমিক ৮ মিলিয়ন ডলারের নতুন সহায়তা অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।

বৈঠকে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী বাংলাদেশে অন্তর্ভুক্তিমূলক অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি, অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন, মানব ও শ্রম অধিকার এবং মত প্রকাশের স্বাধীনতার প্রচারে যুক্তরাষ্ট্রের অঙ্গীকার পুনর্ব্যক্ত করেন বলে জানান বেদান্ত প্যাটেল।