ঢাকা , শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ২৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ম্যারাডোনার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাকারদের দখলে

দিয়েগো ম্যারাডোনার চিরপ্রয়াণের তিন বছর হতে চলল। ২০২০ সালের ২৫ নভেম্বর না ফেরার দেশে পাড়ি জমান আর্জেন্টাইন এই ফুটবল ঈশ্বর। তবুও মাঠে অনন্য সব কীর্তির জন্য এখনও বিভিন্ন আলোচনায় উঠে আসে কিংবদন্তি এই ফুটবলারের নাম।

এই তো কয়েক দিন আগেই ৩৩ বছর পর ইতালিয়ান লিগের শিরোপা জিতেছে নাপোলি। যা স্বাভাবিকভাবেই স্মরণ করিয়ে দেয় ম্যারাডোনার কথা। কারণ, তার অধীনেই শেষবারের মতো লিগ শিরোপা জিতেছিল ন্যাপোলসরা।

তবে এবার সম্পূর্ণ ভিন্ন কারণে খবরের শিরোনাম হয়েছেন ফুটবলের এই মহাতারকা। পৃথিবী থেকে বিদায় নিলেও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে অফিসিয়াল অ্যাকাউন্ট রয়ে গেছে ম্যারাডোনার। মঙ্গলবার (২৩ মে) রাতে তার সেই অ্যাকাউন্টটি হ্যাকিংয়ের কবলে পড়ে!

আর্জেন্টাইন সংবাদমাধ্যম ‘টিওয়াইসি স্পোর্টস’ এই তথ্য নিশ্চিত করেছে। হ্যাকিংয়ের শিকার ওই অ্যাকাউন্ট থেকে এরপর বেশ কয়েকটি পোস্ট করা হয়। বিভ্রান্তিকর সেসব পোস্ট পরবর্তীতে নজরে আসে ভক্তদের। এরপরই তারা বুঝতে পারেন যে, আইডি হ্যাক হয়েছে।

হ্যাক হওয়ার পর ম্যারাডোনার আইডি থেকে প্রথম পোস্টটি ছিল এমন, ‘তারা জানে যে আমি আমার মৃত্যুকে জাল করেছি, তাই না?’ পরবর্তীতে ম্যারাডোনার ঘনিষ্ঠ ও তার অ্যাকাউন্ট ম্যানেজমেন্ট টিম কোনো পোস্ট গুরুতরভাবে না নিয়ে হ্যাক হয়েছে বলে জানান। একই সঙ্গে সেসব পোস্ট এড়িয়ে যেতে আহ্বান জানান তারা।

এরপর আরও একাধিক বিতর্কিত মন্তব্য পোস্ট করা হয়। যেখানে এক পোস্টে লিওনেল মেসিকে নিয়ে ইতিবাচক কথা বললেও তার চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোকে আক্রমণ করা হয়। যা রীতিমতো ভাইরাল হয়ে গেছে।

এ ছাড়া আরেকটি পোস্টে মেক্সিকোর প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেস ম্যানুয়েল লোপেজ ওব্রাডোর পক্ষে সমর্থন প্রকাশ করেন হ্যাকাররা। তাই ম্যারাডোনার ফেসবুক হ্যাকিংয়ের সঙ্গে মেক্সিকান কেউ জড়িত বলে ধারণা করা হচ্ছে।

এ ঘটনায় বিভ্রান্ত ভ্ক্তদের উদ্দেশ্যে পরে ম্যারাডোনার পরিবার জানিয়েছে, ‌‌‘আমরা দুঃখের সঙ্গে জানাচ্ছি যে, দিয়েগো ম্যারাডোনার অফিসিয়াল ফেসবুক অ্যাকাউন্টে সাইবার হামলা হয়েছে। আমরা অ্যাকাউন্টটি উদ্ধার করতে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।’

Tag :
আপলোডকারীর তথ্য

Bangal Kantha

ম্যারাডোনার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাকারদের দখলে

আপডেট টাইম : ০৩:৫৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৪ মে ২০২৩

দিয়েগো ম্যারাডোনার চিরপ্রয়াণের তিন বছর হতে চলল। ২০২০ সালের ২৫ নভেম্বর না ফেরার দেশে পাড়ি জমান আর্জেন্টাইন এই ফুটবল ঈশ্বর। তবুও মাঠে অনন্য সব কীর্তির জন্য এখনও বিভিন্ন আলোচনায় উঠে আসে কিংবদন্তি এই ফুটবলারের নাম।

এই তো কয়েক দিন আগেই ৩৩ বছর পর ইতালিয়ান লিগের শিরোপা জিতেছে নাপোলি। যা স্বাভাবিকভাবেই স্মরণ করিয়ে দেয় ম্যারাডোনার কথা। কারণ, তার অধীনেই শেষবারের মতো লিগ শিরোপা জিতেছিল ন্যাপোলসরা।

তবে এবার সম্পূর্ণ ভিন্ন কারণে খবরের শিরোনাম হয়েছেন ফুটবলের এই মহাতারকা। পৃথিবী থেকে বিদায় নিলেও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে অফিসিয়াল অ্যাকাউন্ট রয়ে গেছে ম্যারাডোনার। মঙ্গলবার (২৩ মে) রাতে তার সেই অ্যাকাউন্টটি হ্যাকিংয়ের কবলে পড়ে!

আর্জেন্টাইন সংবাদমাধ্যম ‘টিওয়াইসি স্পোর্টস’ এই তথ্য নিশ্চিত করেছে। হ্যাকিংয়ের শিকার ওই অ্যাকাউন্ট থেকে এরপর বেশ কয়েকটি পোস্ট করা হয়। বিভ্রান্তিকর সেসব পোস্ট পরবর্তীতে নজরে আসে ভক্তদের। এরপরই তারা বুঝতে পারেন যে, আইডি হ্যাক হয়েছে।

হ্যাক হওয়ার পর ম্যারাডোনার আইডি থেকে প্রথম পোস্টটি ছিল এমন, ‘তারা জানে যে আমি আমার মৃত্যুকে জাল করেছি, তাই না?’ পরবর্তীতে ম্যারাডোনার ঘনিষ্ঠ ও তার অ্যাকাউন্ট ম্যানেজমেন্ট টিম কোনো পোস্ট গুরুতরভাবে না নিয়ে হ্যাক হয়েছে বলে জানান। একই সঙ্গে সেসব পোস্ট এড়িয়ে যেতে আহ্বান জানান তারা।

এরপর আরও একাধিক বিতর্কিত মন্তব্য পোস্ট করা হয়। যেখানে এক পোস্টে লিওনেল মেসিকে নিয়ে ইতিবাচক কথা বললেও তার চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোকে আক্রমণ করা হয়। যা রীতিমতো ভাইরাল হয়ে গেছে।

এ ছাড়া আরেকটি পোস্টে মেক্সিকোর প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেস ম্যানুয়েল লোপেজ ওব্রাডোর পক্ষে সমর্থন প্রকাশ করেন হ্যাকাররা। তাই ম্যারাডোনার ফেসবুক হ্যাকিংয়ের সঙ্গে মেক্সিকান কেউ জড়িত বলে ধারণা করা হচ্ছে।

এ ঘটনায় বিভ্রান্ত ভ্ক্তদের উদ্দেশ্যে পরে ম্যারাডোনার পরিবার জানিয়েছে, ‌‌‘আমরা দুঃখের সঙ্গে জানাচ্ছি যে, দিয়েগো ম্যারাডোনার অফিসিয়াল ফেসবুক অ্যাকাউন্টে সাইবার হামলা হয়েছে। আমরা অ্যাকাউন্টটি উদ্ধার করতে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।’