,



৭ খুন মামলা: ৩য় দফায় ২৪ আসামীর যুক্তিতর্ক শুনানি সম্পন্ন

নারায়ণগঞ্জে ৭ খুনের দুটি মামলায় প্রধান আসামী নূর হোসেন, র‌্যাবের সাবেক তিন কর্মকর্তা তারেক সাঈদ মোহাম্মদ, আরিফ হোসেন ও এম এম রানাসহ ২৩ আসামীর উপস্থিতিতে রাষ্ট্রপক্ষের ৩য় দফা যুক্তিতর্ক শুনানি হয়েছে। আজ ৩য় দফায় ৩৫ জন আসামীর মধ্যে ২৪ জন আসামীর যুক্তিতর্ক শুনানি হয়। আগামীকাল সোমবার বাকি ১১ আসামীর ৩য় দফা যুক্তিতর্ক শুনানি হওয়ার তারিখ নির্ধারন করেছে আদালত।

রোববার সকাল পৌনে ১০টা থেকে বিকেল সোয়া চারটা পর্যন্ত জেলা ও দায়রা জজ সৈয়দ এনায়েত হোসেনের আদালতে পাবলিক প্রসিকিউটর এডভোকেট ওয়াজেদ আলী খোকন যুক্তিতক উপস্থাপন করেন। এর আগে সকালে কড়া নিরাপত্তার মধ্যে দিয়ে মামলার প্রধান আসামী নূর হোসেন, র‌্যাবের সাবেক তিন কর্মকর্তা তারেক সাঈদ মোহাম্মদ, আরিফ হোসেন ও এম এম রানাসহ ২৩ আসামীকে আদালতে হাজির করা হয়।

গত ২৪ অক্টোবর পাবলিক প্রসিকিউর এডভোকেট ওয়াজেদ আলী খোকন ফৌজদারী কার্য বিধির ৩৪২ ধারায় আদালতে নূর হোসেন, র‌্যাবের সাবেক তিন কর্মকর্তাসহ ৪ জনের অভিযোগ পড়ে শোনান। তবে আসামীরা নিজেদের নিদোর্ষ দাবি করে। এর আগে ৩১ অক্টোবর ১৯ আসামীর বিরুদ্ধে সাক্ষ্য প্রমাণ পাওয়া অভিযোগ পড়ে শোনানো হয়। সেসময়ও আসামীরা নিজেদের নির্দোষ দাবি করেন। ওইদিন ৫ আসামী নিজেদের নির্দোষ দাবী করে লিখিত বক্তব্য দিয়েছিল।

২০১৪ সালের ২৭ এপ্রিল ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ লিংক রোডের ফতুল্লার লামাপাড়া এলাকা থেকে প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলাম ও সিনিয়র আইনজীবি চন্দন সরকারসহ ৭ জনকে অপহরণের তিনদিন পর শীতলক্ষ্যা নদী থেকে তাদের লাশ উদ্ধার করা হয়। এই ঘটনায় পৃথক দুটি মামলায় মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ৩৫ আসামীকে অভিযুক্ত করে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে। বর্তমানে র‌্যাবের ৮ সদস্যসহ ১২ জন আসামী পলাতক রয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর