রাশিয়া এখনও ভারতের শীর্ষ অস্ত্র সরবরাহকারী দেশ

২০১৭-২০২২ সালের মধ্যে ভারতের সমরাস্ত্র আমদানির ৬২ শতাংশ থেকে কমে ৪৫ শতাংশে নেমে গেলেও রাশিয়া দিল্লির বৃহত্তম অস্ত্র সরবরাহকারী হিসাবে রয়ে গেছে। স্টকহোম ইন্টারন্যাশনাল পিস রিসার্চ ইনস্টিটিউটের (সিপ্রি) প্রতিবেদনে এ কথা বলা হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ভারতের আমদানিকৃত অস্ত্রের ২৯ শতাংশ আসে ফ্রান্স থেকে। আগে দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা যুক্তরাষ্ট্র থেকে এখন মাত্র ১১ শতাংশ অস্ত্র আমদানি করছে ভারত।

গবেষকরা জানিয়েছেন, ভারত তার মোট অস্ত্র আমদানি ১১ শতাংশ হ্রাস করলেও বর্তমানে দেশটি বিশ্বের বৃহত্তম অস্ত্র ক্রেতা। দিল্লি তার অস্ত্রের ভান্ডার বৈচিত্র্যময় করতে চায় এবং অভ্যন্তরীণ ক্ষমতা বাড়াতে চায়।

বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, রাশিয়া থেকে অস্ত্র আমদানি কমে যাওয়ার প্রধান কারণ হচ্ছে ভারতের নতুন সরবরাহকারী খোঁজা এবং স্থানীয় উৎপাদনকে উৎসাহিত করার সিদ্ধান্ত।

সিপ্রি জানিয়েছে, ভারতের প্রধান অস্ত্র সরবরাহকারী হিসাবে রাশিয়ার অবস্থান চাপের মধ্যে থাকার কারণ হচ্ছে, ‘অন্যান্য সরবরাহকারী দেশগুলোর শক্তিশালী প্রতিযোগিতা, ভারতীয় অস্ত্র উৎপাদন বৃদ্ধি এবং ইউক্রেনে হামলার সাথে সম্পর্কিত রাশিয়ার অস্ত্র রপ্তানিতে বাধা।’

ভারতের একটি সময়ের পরীক্ষিত মিত্র হচ্ছে রাশিয়া। দুই দেশের মধ্যে কয়েক দশক ধরে ঘনিষ্ঠ প্রতিরক্ষা সম্পর্ক বিদ্যমান। ভারতীয় সেনাবাহিনী রাশিয়ার তৈরি ট্যাঙ্ক এবং রাইফেল দিয়ে সজ্জিত। ভারতীয় বিমান বাহিনী রাশিয়ার সুখোই যুদ্ধবিমান এবং এমআই-১৭ হেলিকপ্টার ব্যবহার করে।

এদিকে, ২০১৩-১৭ এবং ২০১৮-২২ সালের মধ্যে ভারতে ফ্রান্সের প্রতিরক্ষা রপ্তানি ৪৮৯ শতাংশ বেড়েছে। বিশ্বব্যাপী অস্ত্র রপ্তানিকারকদের তালিকায় ফ্রান্সের অবস্থান তৃতীয়। এর আগে রয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এবং রাশিয়ার অবস্থান। ভারতের কাছ থেকে ৬২টি যুদ্ধবিমান এবং চারটি সাবমেরিন সরবরাহের আদেশ পেয়েছিল ফ্রান্স।

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর