যে কারণে এক মাসের জন্য কমল গরুর মাংসের দাম

বাঙালী কণ্ঠ ডেস্কঃ আজ বৃহস্পতিবার (৭ ডিসেম্বর) থেকে রাজধানী ঢাকায় ৬৫০ টাকা কেজি দরে গরুর মাংস বিক্রির সিদ্ধান্ত হয়েছে। গতকাল বুধবার মাংস ব্যবসায়ীরা এমন সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছেন।

তারা জানান, নির্বাচনের আগ পর্যন্ত আগামী এক মাসের জন্য প্রতি কেজি গরুর মাংস ৬৫০ টাকায় বিক্রির সিদ্ধান্ত হয়েছে। নির্বাচনের পর মাংসের দাম আবার সমন্বয় করা হবে।

বুধবার সন্ধ্যায় রাজধানীর মোহাম্মদপুরে ডেইরি ফার্মার্স অ্যাসোসিয়েশন ও মাংস ব্যবসায়ী সমিতির এক বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

বৈঠকে আরও জানানো হয়, প্রতি কেজি গরুর মাংসে ৭৫০ গ্রাম মাংস, ২০০ গ্রাম হাড় ও ৫০ গ্রাম চর্বি থাকবে। মাংস ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি গোলাম মর্তুজা মন্টু বলেন, রাজধানীতে নতুন নির্ধারিত মূল্য কার্যকর হবে। এর পর সারা দেশে তা বাস্তবায়ন করার জন্য কার্যক্রম হাতে নেওয়া হবে।

বাংলাদেশ ডেইরি ফার্মার্স অ্যাসোসিয়েশনের (বিডিএফএ) সভাপতি মো. ইমরান হোসেন বলেন, ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের সভায় আমাদের সংশ্লিষ্ট সবাইকে বসে মাংসের দাম নির্ধারণ নিয়ে আলোচনা করতে বলা হয়েছিল। এক্ষেত্রে খামারি, বিক্রেতা ও ভোক্তা সবার কথা বিবেচনা করতে হবে। কারণ এর মধ্যে কেউ ক্ষতিগ্রস্ত হলে সবারই ক্ষতি।

প্রসঙ্গত কিছু দিন আগেও কেজিপ্রতি গরুর মাংস সর্বোচ্চ ৮০০ টাকায় বিক্রি হয়। দাম বেড়ে যাওয়ার পরিপ্রেক্ষিতে এক পর্যায়ে গরুর মাংসের চাহিদাও কমে আসে। ফলে গত নভেম্বরের শেষের দিকে কমতে শুরু করে দাম। বাজার ভেদে ৬০০ থেকে ৭০০ টাকায় বিক্রি হয়।

গত রোববার মাংস ব্যবসায়ীদের সঙ্গে এক বৈঠকে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক এ এইচএম সফিকুজ্জামান বলেন, উৎপাদন খরচ বিবেচনায় গরুর মাংসের দাম ৫০০ টাকার বেশি হওয়া উচিত নয়। বর্তমানে রাজধানীর বেশিরভাগ বাজারে ৬০০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হলেও, তা একশ’ টাকা কমানো সম্ভব।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর