ঢাকা , মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪, ৭ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

খন্দকার মোশাররফকে চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুর নেওয়ার প্রস্তুতি চলছে

রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনের অবস্থা সঙ্কটাপন্ন। উন্নত চিকিৎসার জন্য আবারও তাকে সিঙ্গাপুরে নেওয়ার প্রক্রিয়া চলছে।

বিএনপির মিডিয়া সেলের সদস্য শায়রুল কবির খান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনকে আগামী সপ্তাহে সিঙ্গাপুরে নেওয়ার প্রক্রিয়া চলছে।

সিঙ্গাপুরে খন্দকার মোশাররফ হোসেনের চিকিৎসা প্রসঙ্গে তার ছেলে এবং বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য খন্দকার মারুফ হোসেন বলেছেন, বাবার শারীরিক অবস্থা ভালো নয়। তাকে আবারও সিঙ্গাপুরে নেওয়ার প্রক্রিয়া চলছে। কবে সিঙ্গাপুর নেওয়া হবে, সেটা এখনো নিশ্চিত করে বলতে পারছি না।

প্রসঙ্গত, গত বছরের ১৭ জুন রাতে হঠাৎ বুকে ব্যথা অনুভব করলে ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনকে রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন থাকার পর ২৪ জুন খন্দকার মোশাররফকে হাসপাতাল থেকে বাসায় নেওয়া হয়। কিন্তু, পুরোপুরি সুস্থ না হওয়ায় ২৭ জুন তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুরে নেওয়া হয়। সিঙ্গাপুরে চিকিৎসা শেষে দুই মাস ১০ দিন পর ৫ সেপ্টেম্বর ঢাকায় ফেরেন তিনি। এর তিন মাস পর ৫ ডিসেম্বর তাকে আবারও রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

Tag :
আপলোডকারীর তথ্য

Bangal Kantha

খন্দকার মোশাররফকে চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুর নেওয়ার প্রস্তুতি চলছে

আপডেট টাইম : ০৪:২২ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৫ জানুয়ারী ২০২৪

রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনের অবস্থা সঙ্কটাপন্ন। উন্নত চিকিৎসার জন্য আবারও তাকে সিঙ্গাপুরে নেওয়ার প্রক্রিয়া চলছে।

বিএনপির মিডিয়া সেলের সদস্য শায়রুল কবির খান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনকে আগামী সপ্তাহে সিঙ্গাপুরে নেওয়ার প্রক্রিয়া চলছে।

সিঙ্গাপুরে খন্দকার মোশাররফ হোসেনের চিকিৎসা প্রসঙ্গে তার ছেলে এবং বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য খন্দকার মারুফ হোসেন বলেছেন, বাবার শারীরিক অবস্থা ভালো নয়। তাকে আবারও সিঙ্গাপুরে নেওয়ার প্রক্রিয়া চলছে। কবে সিঙ্গাপুর নেওয়া হবে, সেটা এখনো নিশ্চিত করে বলতে পারছি না।

প্রসঙ্গত, গত বছরের ১৭ জুন রাতে হঠাৎ বুকে ব্যথা অনুভব করলে ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনকে রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন থাকার পর ২৪ জুন খন্দকার মোশাররফকে হাসপাতাল থেকে বাসায় নেওয়া হয়। কিন্তু, পুরোপুরি সুস্থ না হওয়ায় ২৭ জুন তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুরে নেওয়া হয়। সিঙ্গাপুরে চিকিৎসা শেষে দুই মাস ১০ দিন পর ৫ সেপ্টেম্বর ঢাকায় ফেরেন তিনি। এর তিন মাস পর ৫ ডিসেম্বর তাকে আবারও রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।