,



মনোনয়ন বাণিজ্যে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে : সেতুমন্ত্রী

ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে মনোনয়ন বাণিজ্যের সঙ্গে যারা জড়িত তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণ হলে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। এ বিষয়ে ইতোমধ্যে তিন সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে বলেও জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন  ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এমপি।

শুক্রবার বেলা ১১ টায় নোয়খালীর মাইজদী বাজারের ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান অরুন চন্দ্র উচ্চ বিদ্যালয়ের শতবর্ষ উদযাপন ও প্রাক্তন ছাত্র-ছাত্রীদের পূনর্মিলনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

এসময় তিনি বলেন, আমরা সব সময় বলে আসছি দলীয় প্রতীকে ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন এটি আমাদের জন্য প্রথম অভিজ্ঞতা। এ অভিজ্ঞতাকে আমরা ভবিষ্যতে কাজে লাগাব। প্রথম কিছু ভুল-ত্রুটি থাকবে, কিছুটা টানাপোড়েন থাকবে। দলীয় ভাবে একটা সীমাবদ্ধতা থাকবে এবং সীমাবদ্ধতা থাকাটাই স্বাভাবিক। এটি মোকাবেলা করার জন্য প্রশাসন বা নির্বাচন কমিশন সবদিক থেকে স্বাধীনতা দেয়া হয়েছে।

তিনি আরো বলেন, পৌরসভাগুলোতেও দলীয় প্রতীকে প্রথমবার নির্বাচন হলেও এ পর্যন্ত কিন্তু সমালোচনামুখর কোনো কিছু ঘটেনি। ইউনিয়ন পরিষদ বিশাল একটি ক্যানভাস। দেশে ৪ হাজার ৫৫৫টি ইউনিয়ন পরিষদের দলীয় প্রতীকে নির্বাচন হচ্ছে। এ নির্বাচনগুলোর ভুলক্রটি, সীমাবদ্ধতা থেকে অভিজ্ঞতা নিয়েই সামনের নির্বাচন বা তৃণমূল পর্যায়ে গণতান্ত্রিক নির্বাচন হবে এবং সেটি যেনো আরো পারফেক্ট হয় সেদিকেই আমাদের লক্ষ্য থাকবে।

এসময় বিএনপির বিভিন্ন অভিযোগ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, যে কোনো নির্বাচন আসলে তারা (বিএনপি) অভিযোগ আর নালিশের উপর নির্ভরশীল হয়ে পড়ে। বড় দল হিসেবে তাদের রাজনৈতিক যে ভূমিকা তা গৌণ ও অকার্যকর করে ফেলছে। ক্ষমতার রাজনীতির দাবা খেলায় হেরে গিয়ে বিএনপি এখন নালিশের রাজনীতির ভাঙা রেকর্ড অবিরাম বাজিয়ে যাচ্ছে।

এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, যথা সময়ে আওয়াম লীগের সম্মেলন হবে। এতে এক ঝাঁক নতুন আসবে এবং প্রবীনেরাও থাকবেন। প্রবীন-নবীনের সমন্বয়ে আওয়ামী লীগের সম্মেলনের নেতৃত্বে পরিবর্তন আসবে। এছাড়া সম্মেলনে ঘোষণাপত্র ও গঠনতন্ত্রের ট্র্যাডিশন এবং টেকনোলজি বা প্রযুক্তির পরিবর্তনসহ ব্যাপক ইতিবাচক পরিবর্তনের প্রস্ততি নেয়া হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

এর আগে মন্ত্রী জাতীয় সংগীত পরিবেশনের মধ্যে দিয়ে পতাক উত্তোলন, বেলনু ও পায়রা উড়িয়ে শতবর্ষ উদযাপনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন।

অনুষ্ঠানে বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি আবু নাছের চৌধুরীর সভাপতিত্বে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নোয়াখালীর পুলিশ সুপার ইলিয়াছ শরীফ পিপিএম সেবা, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক ড. মাহে আলম, নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড.এম অহিদুজ্জামানসহ বিদ্যালয়ের সাবেক ও বর্তমান কৃতি শিক্ষার্থীরাসহ আরো অনেকে।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর