,



মা হলেন রানা প্লাজার সেই রেশমা

সাভারের রানা প্লাজা ধসের ১৭ দিন পর ধ্বংসস্তূপ থেকে উদ্ধার হওয়া রেশমা কন্যাসন্তানের মা হয়েছেন। নাম রাখা হয়েছে রিদওয়ানা ইসলাম রেবা।

নিজের পছন্দে ময়মনসিংহের ছেলে আতাউর রহমান রাব্বিকে বিয়ে করেন রেশমা গতবছরের জানুয়ারিতে। তবে বিয়ের কথাটি তারা গোপন রেখেছিলেন।গত ১০ মার্চ ভোরে রাজধানীর মগবাজারের আদ-দ্বীন হাসপাতালে রেশমা কোলে আসে এক শিশুকন্যা। এরপরই দুই পরিবার একই সঙ্গে জানতে পারে তাদের বিয়ে ও সন্তানের বাবা-মা হওয়ার খবর।

গুলশানের ওয়েস্টিন হোটেলে কর্মরত রেশমা বর্তমানে চার মাসের মাতৃত্বকালীন ছুটিতে রয়েছেন । গুলশানের ইউনাইটেড হাসপাতালের বিপরীতে বাসায় স্বামী-সন্তানকে নিয়ে তার দিন কাটছে ।

রেশমার স্বামী রাব্বী চাকরি জানান, অনেকদিন ধরে গুলশান এলাকায় থাকছেন। রেশমাও থাকেন গুলশানে। যাওয়া-আসার পথেই তার সঙ্গে পরিচয়। এরপর বিয়ে। এক বছর ৩ মাসের বৈবাহিক জীবনে তারা সুখেই আছেন।

এটি রেশমার দ্বিতীয় বিয়ে। প্রথম স্বামী আবদুর রাজ্জাকের সঙ্গে ছাড়াছাড়ির পর সাভারের রানা প্লাজার একটি পোশাক কারখানায় চাকরি নিয়েছিলেন রেশমা। তার মাত্র ২২ দিনের মাথায় ২০১৩ সালের ২৪ এপ্রিল ঘটে সেই ভয়াবহ দুর্ঘটনা। এক হাজার ১৩৮ জন নিহত এবং দুই হাজারের বেশি মানুষ আহত হন তাতে।

রানা প্লাজা নরকের ধ্বংসস্তূপের ভেতর টানা ১৭ দিন খাবার ও পানি ছাড়া বেঁচে থাকা এবং প্রায় সুস্থ রেশমার উদ্ধারের ঘটনা দেশ-বিদেশের মিডিয়ায় তোলপাড় তোলে। বিস্ময়ের জন্ম দেয় বিশ্বজুড়ে। সেদিন রেশমা পেয়েছিলেন ‘অলৌকিক কন্যা’ আখ্যা।

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর