তৃতীয় মেয়াদে অফিসার্স ক্লাব ঢাকার সাধারণ সম্পাদক মেজবাহ উদ্দিন

টানা তৃতীয়বার অফিসার্স ক্লাব ঢাকার সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের সাবেক সচিব মেজবাহ উদ্দিন। শুক্র ও শনিবার অফিসার্স ক্লাবের দ্বিবার্ষিক (২০২৪-২৫) নির্বাচনের ভোটগ্রহণ শেষে আজ ফলাফল ঘোষণা করেন রিটার্নিং কর্মকর্তা। প্রশাসন পাড়ার সবচেয়ে আলোচিত এ নির্বাচন ঘিরে ছিল তুমুল আলোচনা। প্রশাসন ক্যাডারসহ বিভিন্ন ক্যাডার কর্মকর্তাদের অনেকে এই অভিজাত ক্লাবের সদস্য।

মেজবাহ উদ্দিন দুই হাজার ৫৭২ ভোট পেয়ে সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব জাহাঙ্গীর আলম পেয়েছেন এক হাজার ৬৫৮ ভোট। ভাইস চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন এম খালিদ মাহমুদ (প্রথম), খোন্দকার মোস্তান হোসেন (দ্বিতীয়) ও অধ্যাপক ড. ফেরদৌসি খান (তৃতীয়)। এর মধ্যে খালিদ মাহমুদ দুই হাজার ৩৮৮ ভোট, খোন্দকার মোস্তান দুই হাজার ৩৪৯ ভোট, ড. ফেরদৌসি খান এক হাজার ৯১৩ ভোট পেয়েছেন।

দুই মেয়াদে দায়িত্ব পালনকালে মেজবাহ উদ্দিন একক প্রচেষ্টায় পাল্টে দিয়েছেন অফিসার্স ক্লাবের চালচিত্র। করোনাকাল থেকে শুরু করে ক্লাবের অবকাঠামো উন্নয়নে পালন করেছেন অগ্রণী ভূমিকা। ক্লাবের চার কোটি টাকার দেনা ছাপিয়ে আরো সাত কোটি টাকার বেশি অঙ্কের নিজস্ব তহবিল গড়ে তুলেছেন। ক্লাবের প্রতি মেজবাহ উদ্দিনের এমন দায়বদ্ধতা ও ভালোবাসাই তাঁকে এত দূর টেনে এনেছে।

অন্যদের মধ্যে দুই হাজার ২৯৭ ভোট পেয়ে কোষাধ্যক্ষ নির্বাচিত হয়েছেন মুস্তাকীম বিল্লাহ ফারুকী। যুগ্ম সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন তানিয়া খান (প্রথম), অধ্যাপক ডা. মনিলাল আইচ লিটু (দ্বিতীয়) ও মো. আখতারুজ্জামান (তৃতীয়)। তানিয়া পেয়েছেন দুই হাজার ৪৬৫ ভোট, ডা. মনিলাল আইচ দুই হাজার ২৯৯ ভোট, আখতারুজ্জামান দুই হাজার ২৫৫ ভোট।

এ ছাড়া নির্বাচিত সদস্যরা হলেন মো. জসিম উদ্দিন, জসিম উদ্দীন হায়দার, ডা. সৈয়দ ফিরোজ আলমগীর, মোহাম্মদ নাছির উদ্দিন, মো. আলমগীর হোসেন, ড. মো. জাকেরুল আবেদীন আপেল, মো. দেলওয়ার হোসেন, ডা. রত্না পাল, আছমা সুলতানা বন্যা, স্থপতি মীর মনজুরুর রহমান, আব্দুল মান্নান ইলিয়াস, এম এ মজিদ, এ এস এম মামুনুর রহমান খলিলী, ড. নশিদ রিজওয়ানা মনির।

এবারের নির্বাচনে পাঁচটি পদের বিপরীতে ৬০ জন প্রার্থী লড়েছেন।

তাঁদের মধ্যে ২২ জন নির্বাচিত হন। গঠনতন্ত্র অনুযায়ী, মন্ত্রিপরিষদসচিব পদাধিকার বলে অফিসার্স ক্লাবের চেয়ারম্যান। তাই এ পদে নির্বাচন হয় না। বর্তমানে চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করছেন মন্ত্রিপরিষদসচিব মো. মাহবুব হোসেন। 

Print Friendly, PDF & Email

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর